স্বাস্থ্য টিপস বিডি https://www.shastotipsbd.com/2022/01/foods-for-weight-loss.html

ওজন কমানোর খাদ্য কি কি | ওজন কমানোর খাদ্য তালিকা

 

ওজন কমানোর খাদ্য,ওজন কমানোর খাদ্য তালিকা,ওজন কমানোর খাদ্যাভাস,ওজন কমানোর জন্য প্রতিদিনের খাদ্য তালিকা,ওজন কমাতে খাদ্য তালিকা,ওজন কমাতে খাদ্য, ওজন কমানোর জন্য খাদ্যাভ্যাস
ওজন কমানোর খাদ্য কি কি | ওজন কমানোর খাদ্য তালিকা

ওজন নিয়ে আজকাল সবাই একটু বেশি সচেতন। তাই শরীরচর্চা, কার্ব কম খাওয়া, তেল–চর্বি এড়িয়ে চলার মতো নানা বিষয়ে সচেতনতা বেড়েছে সব বয়সী মানুষের মাঝে। পাশাপাশি বিভিন্ন রোগ থেকে নিজেকে রক্ষা করার জন্যও বাড়তি ওজন কমাতে চান অনেকে। নিজেকে সুদর্শন দেখাতে ও ইচ্ছেমতো পোশাক পরতে চাইলেও দরকার সঠিক ওজনে থাকা। ওজন কমানো মানে কিন্তু আপনার বয়স এবং উচ্চতার সঙ্গে আদর্শ ওজন ধরে রাখা। 


আর ডাক্তারদের মতে, আপনি যদি ওজন কমানোর জন্য না খেয়ে থাকেন তাহলে আপনার শরীরের Metabolism কমে যেতে পারে, যার ফলে Calories খরচ কমে যাবে, এক্ষেত্রে হিতে-বিপরীত হয়ে আপনার ওজন আরো বৃদ্ধি পেতে পারে। অপরপক্ষে খাদ্য গ্রহন করলে আমাদের শরীরের Metabolism বৃদ্ধি পায় এবং শরীর পরিণত হয় ফ্যাট বা চর্বি পোড়ানোর যন্ত্রে। তাই না খেয়ে থাকার পরিবর্তে অল্প অল্প করে বারবার খাওয়ার অভ্যাস গড়ে তুলুন, অবশ্যই স্বাস্থ্যসম্মত খাবার খেতে হবে । এবার চলুন জেনে নেওয়া যাক ওজন কমাতে সহায়ক খাবারগুলোর কথা।


১) পানি

পানির অপর নাম জীবন। পানিই হল একমাত্র খাদ্য উপাদান যা শরীরে কোন রকম ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে না। পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করলে শরীরে পানির ঘাটতি যেমন পূরণ হয়, তেমনি শরীরের দূষিত উপাদানসমূহ বের করে দিতে কার্যকর ভূমিকা পালন করে থাকে। সুতরাং পানির কোন বিকল্প নেই বললেই চলে। পানি আপনার রক্তে গ্লুকোজের ভারসাম্য বজায় রাখতে সাহায্য করে থাকে, যাতে ওজন থাকবে নিয়ন্ত্রণে।


২ ) সরিষার তেল

প্রাচীন কাল থেকে আমাদের দেশ রান্নার কাজে সরিষার তেল ব্যবহার হয়ে আসছে। অন্যান্য ভোজ্য তেলের তুলনায় এতে রয়েছে অনেক নিম্ন মাত্রার চর্বি, যা শরীরে মধ্যে অতিরিক্ত মেদ জমতে দেয় না ও ওজন কমাতেও সাহায্য করে। এছাড়া এতে রয়েছে Monounsaturated ও Polyunsaturated ফ্যাটি এসিডের সঠিক অনুপাত, যা হৃদরোগ, ডায়েবেটিস ও কিডনী রোগকেও দূরে রখে। তাই রান্নার কাজে অবশ্যই সরিষার তেল ব্যবহার করুন।



৩) সবুজ চা/গ্রিন টি

সবুজ চা অ্যান্টি-অক্সিডেন্টসমূহের একটি বড় উৎস। হজমের শক্তি বাড়াতে এবং দেহে জমে থাকা চর্বি পোড়াতে এর জুড়ি নেই। প্রতিদিন অন্তত ২ কাপ সবুজ চা খাবার তালিকায় যুক্ত করুন। এটি রক্তের এলডিএল (LDL) এর পরিমাণ কমাতে সাহায্য করে তথা ওজন কমাতে সাহায্য করে। এলডিএল (LDL) হচ্ছে ক্ষতিকর কোলস্টেরল, যা রক্তচাপ অনিয়ন্ত্রিত করে দেহের ক্ষতি সাধন করে থাকে।


৪) টক দই

টক দইয়ে আছে Lyco প্রোটিন এবং Calcium, যা চর্বি পোড়াতে সাহায্য করে। এছাড়া টক দই চিনিবিহীন এবং এতে অতিরিক্ত Carbohydrate জমা থাকে না বলে এটি ওজন কমাতে সাহায্য করে। এটার ব্যাকটেরিয়াসমুহ দেহের জন্য অত্যন্ত উপকারী যা আপনার পরিপাকতন্ত্রের কাজে সাহায্য করে।


৫) আপেল

আপেল আঁশ জাতীয় ফল বলে হজম হয় দ্রুত কিন্তু এর Pectin নামক Enzymes অনেক সময় ধরে ক্ষুধাহীন অনুভূতি দেয়। আপেলে রয়েছে প্রচুর পুষ্টি, কিন্তু সেই তুলনায় ক্যালরী অনেক কম। তাই রোজ অন্তত একটি করে হলেও আপেল খাওয়ার চেষ্টা করুন।


৬) লেবু

লেবুর রসে রয়ছে দেহের মেদ কমানোর আশ্চর্য ক্ষমতা। এটি দেহের মেটাবোলিজম বাড়াতেও সাহায্য করে, আর উচ্চ মেটাবোলিজম ওজন কমিয়ে আনে সহজেই।


৭) কলা

কলা হচ্ছে ক্যলসিয়াম ও সেরোটিনের এক উন্নত উৎস। কলার ক্যলসিয়াম ও আঁশ ক্ষুধা নিবারণ করে দ্রুত আর সেরোটিন দেহ ও মন চাঙ্গা করে থাকে নিমেষেই। আর মোটকথা ওজন কমাতে রাখে অদ্বিতীয় ভূমিকা



 এইতো জেনে নিলেন কিছু ওজন কমানোর খাদ্য সম্পর্কে। ভালো থাকুন, সুস্থ ও সুন্দর জীবনযাপন করুন।


ওজন কমাতে চাইলে এই খাবারগুলি খাদ্য তালিকা থেকে অবশ্যই বাদ দিন:


১। ফ্রেঞ্চ ফ্রাই ও পটেটো চিপ্স

২। কোমল পানীয়

৩। পাউরুটি এবং ময়দার রুটি

৪। ক্যান্ডি

৫। এলকোহল বা মাদকজাত পানীয়

৬। পিৎযা

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

স্বাস্থ্য টিপস বিডি কি?